শুক্রবার, মে 24, 2024
HomeNewsCharak Puja || ২০২৩ চড়ক পূজা নির্ঘণ্ট সময়সূচী

Charak Puja || ২০২৩ চড়ক পূজা নির্ঘণ্ট সময়সূচী

 

Charak Puja || ২০২৩ চড়ক পূজা নির্ঘণ্ট সময়সূচী

 

Charak Puja || ২০২৩ চড়ক পূজা নির্ঘণ্ট সময়সূচী:  ২০২৩ সালে চড়ক পূজার সময়সূচী । চড়ক পূজা নির্ঘণ্ট সময়সূচি । পূজার তাৎপর্য। এবং চড়ক পূজায় গাজনের মেলা । প্রতিবছর মূলত চৈত্র মাসের শেষের দিন পালন করা হয় চৈত্র সংক্রান্তি। প্রত্যেক মাসের মতো চৈত্র সংক্রান্তির সঙ্গে চড়ক পূজা ও গাজনের মেলা অনুষ্ঠিত হয়। বিভিন্ন স্থানে চড়ক পূজা অনুষ্ঠিত হয়।

২০২৩ চড়ক পূজা নির্ঘণ্ট সময়সূচী

Charak Puja
Charak
Puja
  • ২০২৩ সালে চড়ক পূজা- ১৪ই এপ্রিল ২০২৩ শুক্রবার।
  • বাংলা মাস অনুসারে চড়ক পূজার তারিখ হল- ৩০ শে চৈত্র ১৪২৯ বঙ্গাব্দে শুক্রবার।
  • কৃষ্ণপক্ষ নবমী শুরু – April 14, 1:34 AM থেকে April 14, 11:13 PM পর্যন্ত ।
  • কৃষ্ণপক্ষ দশমী শুরু- April 14, 11:13 PM থেকে April 15, 8:45 PM পর্যন্ত।

লোক উৎসব চড়ক পূজা

লোক উৎসব চড়ক পূজা: চড়ক বাংলার এক প্রধান লোক উৎসব । পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশে চৈত্র মাসের শেষে অনুষ্ঠিত হয় এই চড়ক পুজো। চৈত্র মাসে শিবের ভক্তরা ভোলানাথের উপাসনা করে থাকেন। হিন্দুদের শাস্ত্র ও লোকাচার অনুসারে এই দিনের স্নান, দান, ব্রত, উপবাস প্রভৃতি ক্রিয়া কর্মকে, পূর্ণ জনক মনে করা হয়।

চৈত্র থেকে বর্ষার প্রারম্ভ পর্যন্ত সূর্য যখন প্রচন্ড থাকে তখন সূর্যের তেজ প্রশমন ও বৃষ্টির আশায় কৃষিজিবি সমাজ বহু অতীতে চৈত্র সংক্রান্তির উদ্ভব করেছিলেন।

Also Read- Click Here

চড়ক পূজার ইতিহাস

চড়ক পূজার ইতিহাস: লিঙ্গ পুরাণ, বৃহৎ ধর্ম পুরাণ, ব্রহ্মবৈবর্ত পুরাণে চৈত্র মাসে দেবাদিদেব মহাদেবের আরাধনা প্রসঙ্গে নৃত্য ও সংগীতের কথা বলা হয়েছে । এবং নৃত্য গীতের সাথে উৎসবের উল্লেখ রয়েছে। তবে চড়ক পূজার কোন উল্লেখ নেই।,পাশুপথ সম্প্রদায়ের মধ্যে প্রাচীনকাল থেকে এই চড়ক উৎসবের প্রচলন ছিল।

Charak Puja

Charak
Puja

১৪৮৫ খ্রিস্টাব্দে সুন্দরা নন্দ ঠাকুর নামে এক রাজা এই পূজার প্রচলন করেছিলেন। রাজ পরিবারের লোকজন এই পূজায় আরম্ভ করলেও চড়ক তখন রাজাদের পূজা ছিল না। চড়কপূজা ছিল হিন্দু সমাজের একটি লোকসংস্কৃতি।

চড়ক পূজো ব্রাহ্মণ

চড়ক পূজো ব্রাহ্মণ: চড়ক পূজায় সন্ন্যাসীরা প্রায় সকলেই ছিলেন হিন্দু ধর্মের। চড়ক পূজো ব্রাহ্মণ ছাড়াই সম্পূর্ণ করা হয়। চড়ক পুজোর আরেকটি নাম হলো নীল পূজা, গম্ভীরা পূজা বা শিবের গাজন।

Charak Puja
Charak
Puja

চড়ক পূজায় চরক গাছ প্রয়োজন হয়। তাই চড়ক পূজার আগের দিন চড়ক গাছটিকে জল দিয়ে পরিষ্কারভাবে স্বচ্ছ করে নেওয়া হয়। পরের দিন জলভরা একটি পাত্রে শিবের প্রতি শিবলিঙ্গ রাখা হয়। যেটি পূজারীদের কাছে পূর শিব নামে পরিচিত। পতিত ব্রাহ্মণ এই পূজার পুরোহিত্য করেন।

গাজন মেলা

গাজন মেলা: Charak Puja সাথে গাজন মেলা। এই মেলায় দেখানো হয় মহাদেবের রূপ। এবং নাটকের মাধ্যমে দর্শকদের নৃত্য পরিবেশন ও ভিন্ন ভিন্ন আকারের মুখোশ পড়ে নৃত্য। গাজন মেলা এই চড়ক পূজার আরেকটি বিশেষ অঙ্গ। এই মেলায় সাধারণত গ্রামগঞ্জে হয়ে থাক।

২০২৩ চড়ক পূজা নির্ঘণ্ট সময়সূচী

Pratidin24ghanta.com

RELATED ARTICLES

Most Popular

close